টয়লেটের পানি দিয়ে ফুচকার টক বানানোর সময় বিক্রেতা ধরা

নভেম্বর ০৮ ২০২০, ১৯:০১

Spread the love

ফুচকা এমন এ’কটি খাবার যার লোভে খা’ওয়ার সময় অনেকেই এই মজাদার খা’বারের গুণগতমান বি’চার করে দেখি না আমরা। তবে অবশ্যই তা দেখা উ’চিত। সম্প্রতি ফুসকায় ব্যবহৃত টক বা’নানোর পানির উৎস ‘নিয়ে ভারতের মহারাষ্ট্রের কো’লাপুরের হইচই শুরু হয়ে গেছে।

জি’নিউজ জানিয়েছে, কোলাপুরের রণকলা ঝিলের সা’মনে বসতেন এক ফুচকা বি’ক্রেতা। স্বাদে-গন্ধে তা’র ফুচকা ছিল অতুলনীয়। তাই বি’কেল বা সন্ধ্যের দিকে তার ফু’চকার স্টলের সামনে মা’নুষের ঢল নামত। দূ’রদূরান্ত থেকেও সেই বি’ক্রেতার কাছে ফুচকা খেতে আস’তেন অনেকে। তিনি যেখানে ব’সতেন তার আশপাশের এ’লাকা ছিল সিসিটিভির আ’ওতায়। একদিন কর্তৃপক্ষ সেই সি’সিটিভির ফুটেজ খতিয়ে দে’খতে গিয়ে চমকে ওঠে। দে’খা যায় সেই ফুচকা বিক্রেতা ট’ক বানাচ্ছেন টয়লেটের পানি দিয়ে। এর’পর গোপনে কয়েক দিন ধ’রে সেই বিক্রেতার ওপ’র নজর রাখা হয়। দে’খা যায়, প্রায় প্রতিদিনই তি’নি এই কাজে টয়লেটের পানি ব্য’বহার করছে।

পরে এ’ই খবর ছড়িয়ে পড়তেই উ’ন্মত্ত জনতা সেই ফুচকা বিক্রেতার স্টলে ভা’ঙচুর চালিয়েছে। ফুচকাসহ স্ট’লের সব মালামাল  ছুড়ে ফেলে দিয়ে’ছে তারা। একই সঙ্গে ফুচকা বি’ক্রেতাকে পুলিশের হাতে তুলে দে’ওয়া হয়েছে।

পুলিশ জা’নিয়েছে, সেই ফুচকা বিক্রেতা নি’জের কৃতকর্মের কথা স্বীকার ক’রেছেন। তবে টয়লেটের পা’নি ব্যবহারের সেই সিসিটিভি ফু’টেজ সামাজিক যোগাযোগ’মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গেছে। খা’বারে টয়লেটের পানি ব্যবহারের কা’রণে মারাত্মক রোগে আক্রান্ত হ’ওয়ার সম্ভাবনা থাকে। অ’থচ দিনের পর দিন এমন কা’জ অবলীলায় করেছেন সে’ই ফুচকা বিক্রেতা। এ ঘ’টনায় তাকে আইনের আ’ওয়ায় আনা হবে।

আমাদের ফেসবুক পাতা

প্রয়োজনে কল করুন 01740665545

আমাদের ফেসবুক দলে যোগ দিন


Translate »