ইয়াবা ধরিয়ে দিয়ে ফাঁসানোর সময় হাতেনাতে ধরা এএসআই

অক্টোবর ০১ ২০২০, ০০:০৬

Spread the love

সোর্সের মাধ্যমে ৫ পিস ইয়াবা ধরিয়ে দিয়ে বাংলাদেশ টোব্যাকো কোম্পানির (বিটিসি) এক কর্মচারীকে গ্রে’ফতারের চেষ্টা করার সময় জনতার হাতে আ’ট’ক হয়েছেন পু’লিশের এক এএসআই। বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রংপুর নগরীর ধাপ চেকপোস্ট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে পু’লিশের ঊর্ধ্বতন কর্মক’র্তারা ঘটনাস্থলে এসে আ’ট’ক পু’লিশ কর্মক’র্তাকে উ’দ্ধার করে থা’নায় নিয়ে যান। রংপুর মেট্রোপলিটন পু’লিশের অ’তিরিক্ত উপ পু’লিশ কমিশনার (অ’প’রাধ) শহিদুল্লা কাওছার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

পু’লিশ, এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, রংপুর নগরীর ধাপ চেক পোস্টের কাছে ডেলিশিয়া হোটেলে বাংলাদেশ টোব্যাকো কোম্পানির মাঠ পর্যায়ের কর্মক’র্তা-কর্মচারীদের একটি সভা চলছিল। দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে আরিফুল ইস’লাম রকি নামে চাকরিচ্যুত এক কর্মচারী সভায় উপস্থিত বিটিসির সুপারভাইজার রাজুকে মোবাইল ফোনে বাইরে আসতে বলে। রাজু বাইরে আসার পরই রকি রাজুর হাতে একটি সিগারেটের প্যাকেট দেয়। সঙ্গে সঙ্গে রংপুর মেট্রোপলিটন পু’লিশের এএসআই আবু সায়েম বিটিসির কর্মচারী রাজুকে ধরে ফেলে এবং তাকে ইয়াবা রাখার দায়ে গ্রে’ফতার করা হলো বলে জানান।

ঘটনা জানাজানি হলে সভায় উপস্থিত থাকা বিটিসির কর্মক’র্তা-কর্মচারী ও আশেপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে পু’লিশের এএসআই আবু সায়েমকে ঘিরে ধরে ইয়াবা দিয়ে ফাঁ’সানোর অ’ভিযোগ এনে বি’ক্ষোভ করে। এ সময় বিক্ষুব্ধ জনতা ওই পু’লিশ কর্মক’র্তাকে গ্রে’ফতার করার দাবি জানায়। এক পর্যায়ে ওই পু’লিশ কর্মক’র্তাকে হোটেল ডেলিশিয়ার ভেতরে নিয়ে গিয়ে আ’ট’কে রাখে। খবর পেয়ে মেট্রোপলিটন পু’লিশের অ’তিরিক্ত উপ-পু’লিশ কমিশনার শহিদুল্লা কাওছারসহ ঊর্ধ্বতন কর্মক’র্তারা ঘটনাস্থলে আসেন। তারা পুরো ঘটনা শুনে ত’দন্ত করে দায়ীদের বি’রুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বা’স দিয়ে জনতার হাতে আ’ট’ক পু’লিশ কর্মক’র্তা আবু সায়েমকে উ’দ্ধার করে থা’নায় নিয়ে আসে।

উপ-পু’লিশ কমিশনার শহিদুল্লা কাওছার বলেন, পুরো বিষয়টি আম’রা ত’দন্ত করে দেখছি। ত’দন্তে কেউ দায়ী হলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


Translate »